X

Type keywords like Social Business, Grameen Bank etc.

Nearly One Million Reached : Yunus' petition reaches close to one million signatures, urging global leaders to put people ahead pharma patents

Nearly One Million Reached : Yunus' petition reaches close to one million signatures, urging global leaders to put people ahead pharma patents

Press Release (11 December 2020)

Nobel laureate Professor Muhammad Yunus launched a call for Covid-19 vaccines to be declared a Common Good in June 2020, which has been joined by 24 other Nobel Laureates and 125 former Presidents, Prime Ministers, and eminent global figures. With the upcoming EU Council Meeting of the European Heads of State, The TRIPS Council, WTO General Council and the African Union meetings, nearly one million, that is 913,453 people as of December 11, 2020 have supported a petition initiated by Yunus and supported by Avaaz, to urge their governments and businesses to make Covid-19 vaccines and medical technologies available everywhere by sharing know how, and without barriers from  intellectual property right restrictions.

 

The petition, circulated intensively around the world by Avaaz, is urging the pharmaceutical companies to voluntarily hand over intellectual property (IP) rights and know-how for the next great task facing humanity: getting those vaccines to everyone, everywhere, at the lowest cost possible, at the fastest possible time.

 

Yunus commented that countries in Europe and America have locked up most of the global supply of vaccines for their own populations, pushing lower income nations to the back of the queue. Under current mechanisms such as COVAX, which are commendable, there simply will not be enough vaccine doses to go around by the end of 2021. The Global North fails to listen to the urgent warning from Dr. Tedros, The Director-General of the World Health Organization “No one is safe until everyone is safe.”

 

Yunus further highlights that to meet the recent challenges, countries urgently need to ramp up diagnostics tools, get access to potentially effective treatments at the lowest cost, and vaccinate their most at-risk as rapidly as possible—such as healthcare providers and the elderly. For this reason, almost one  hundred countries are supporting a proposal at the World Trade Organization this month to issue a broad-based general waiver on patents and other IP rights to all Covid-19 vaccines and medical technologies. South Africa, a country where the tragic history of lives needlessly lost to the HIV/Aids pandemic looms large, is a co-sponsor of the proposal. A binding agreement to allow the vaccine to be patent-free, could transform the situation dramatically by sending a clear message that the vaccine is a global common good.

 

The pledge from Yunus stresses the fact that there should not be a North-South divide on the core issue of saving human lives in countries where most of the global population lives. The time has come for G20 leaders to show that they mean every word when they say they will “spare no effort” to leave no one behind. They have to step up to support the WTO proposal.

 

Since his first Appeal in June, Yunus joined the People's Vaccine Alliance, and has been working with many global organizations such as UNAIDs, Oxfam and twenty other organizations, to reach out to the United Nations, government leaders, and decision makers. Yunus, along with other members of the Alliance, initiated a draft resolution for the UN General Assembly to declare Covid-19 vaccines a global common good.

 

Please find the petition here: https://secure.avaaz.org/campaign/en/vaccine_common_good/?zLNlAfb

 

END

 

প্রেস রিলিজ

প্রায় দশ লক্ষ স্বাক্ষর সংগৃহীত : মানুষের জীবনকে ঔষধ কোম্পানীর মুনাফার উপরে স্থান দিতে হবে

 

কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনকে একটি বৈশ্বিক সর্বসাধারণের সামগ্রী হিসেবে ঘোষণা করতে জুন ২০২০ মাসে নোবেল লরিয়েট প্রফেসর মুহাম্মদ ইউনূস বিশ্বব্যাপী এক প্রচারাভিযান শুরু করেন। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের ২৪ জন নোবেল লরিয়েট এবং ১২৫ জন প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট, প্রধানমন্ত্রী ও খ্যাতনামা ব্যক্তিত্বগণ একাজে তাঁর সাথে সমবেত হন। আসন্ন ইউরোপীয় রাষ্ট্রপ্রধানদের European Union সম্মেলন, The TRIPS সম্মেলন, WTO সম্মেলন ও African Union সম্মেলনকে সামনে রেখে প্রফেসর ইউনূসের শুরু করা ও Avaaz কর্তৃক সমর্থিত এই পিটিশনে ১১ ডিসেম্বর ২০২০ পর্যন্ত ৯,১৩,৪৫৩ মানুষ স্বাক্ষর করেছেন যেখানে তাঁরা তাঁদের সরকার ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানদেরকে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন ও চিকিৎসা প্রযুক্তিকে এর কারিগরী বিষয়গুলো শেয়ার করার মাধ্যমে ও এগুলোকে বুদ্ধিবৃত্তিক মালিকানা সংক্রান্ত বিভিন্ন বাধ্যবাধকতা থেকে মুক্ত রেখে এই ভ্যাকসিনকে পৃথিবীর সর্বত্র সহজলভ্য করার আবেদন জানিয়েছেন।

 

Avaaz কর্তৃক বিশ্বব্যাপী প্রচারিত এই পিটিশনে ঔষধ কোম্পানীগুলোকে স্বেচ্ছামূলকভাবে তাদের বুদ্ধিবৃত্তিক মালিকানা ও প্রযুক্তি হস্তান্তর করার মাধ্যমে এই ভ্যাকসিনকে পৃথিবীর সর্বত্র, সবচেয়ে কম খরচে ও সবচেয়ে কম সময়ে সকল মানুষের জন্য সহজলভ্য করার জন্য আহ্বান জানান হয়েছে।

 

প্রফেসর ইউনূস মন্তব্য করেছেন যে, ইউরোপ ও আমেরিকার ধনী দেশগুলো এরই মধ্যে এই ভ্যাকসিনের বৈশ্বিক সরবরাহের প্রায় সবটাই তাদের জনগণের স্বার্থে তাদের নিজেদের দখলে নিয়ে গেছে এবং এর ফলে নিম্ন আয়ের দেশগুলো ভ্যাকসিন পাবার ক্ষেত্রে অনেক পিছিয়ে পড়েছে। এর ফলে COVAX এর মতো প্রশংসনীয় বর্তমান পদ্ধতিতেও ২০২১ সালের শেষে পৃথিবীর সর্বত্র এই ভ্যাকসিন পৌঁছানো যাবে না। উত্তর গোলার্ধকে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালক ড. টেড্রোস এর এই জরুরী সতর্কবার্তা বোঝানো যাচ্ছে না যে, “সকলকে নিরাপদ না করা পর্যন্ত কেউই নিরাপদ নয়।”

 

প্রফেসর ইউনূস আরো বলছেন যে, সাম্প্রতিক চ্যালেঞ্জগুলো মোকাবেলা করতে হলে সকল দেশকে জরুরীভাবে স্বাস্থ্য পরীক্ষার সামগ্রীসমূহ সংগ্রহ করতে হবে, সর্বনিম্ন খরচে সকলের জন্য কার্যকর চিকিৎসার ব্যবস্থা করতে হবে এবং সবচেয়ে বেশী ঝুঁকিপূর্ণদের - যেমন স্বাস্থ্যকর্মী ও বয়স্ক মানুষদেরকে  যতো দ্রুত সম্ভব ভ্যাকসিন দিতে হবে। এজন্য প্রায় ১০০টি দেশ কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন ও এর চিকিৎসা প্রযুক্তির প্যাটেন্ট ও বুদ্ধিবৃত্তিক মালিকানার উপর একটি ব্যাপক-ভিত্তিক সাধারণ স্বত্বত্যাগ জারী করতে এ মাসে WTO-তে একটি প্রস্তাবে সমর্থন দিতে যাচ্ছে। HIV/AIDS মহামারীতে ব্যাপকভাবে আক্রান্ত দেশ দক্ষিণ আফ্রিকা, যেখানে বিপুল মানুষ নিরর্থক প্রাণ দিয়েছে, এই প্রস্তাবের কো-স্পন্সর। কোভিড ভ্যাকসিনকে প্যাটেন্ট-মুক্ত করতে একটি বাধ্যতামূলক চুক্তি এই ভ্যাকসিন একটি বৈশ্বিক সর্বসাধারণের সামগ্রী - এই বার্তা পরিষ্কারভাবে পৌঁছে দিয়ে পরিস্থিতি নাটকীয়ভাবে বদলে দিতে পারে।

 

প্রফেসর ইউনূসের এই উদ্যোগ যে বিষয়টির উপর জোর দিচ্ছে তা হলো, মানুষের জীবন রক্ষার মতো একটি মৌলিক প্রশ্নে কোন “উত্তর-দক্ষিণ” বিভাজন কাম্য নয়, বিশেষত সেসব দেশের ক্ষেত্রে যেখানে পৃথিবীর জনসংখ্যার বড় অংশ বাস করে। এখন সময় এসেছে G-20 নেতাদের এটা প্রমাণ করা যে, কাউকে পেছনে ফেলে না রাখতে “চেষ্টার কোনো ত্রুটি” না করতে তাঁরা প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। WTO -তে উত্থাপিত প্রস্তাবটির সমর্থনে তাঁদের এগিয়ে আসা প্রয়োজন।

 

উল্লেখ্য যে, এ বছরের জুন মাসে তাঁর প্রথম আবেদনের পর প্রফেসর ইউনূস People’s Vaccine Alliance-এ যোগ দেন এবং জাতি সংঘ, বিভিন্ন দেশের সরকার ও রাষ্ট্রপ্রধানগণ এবং সিদ্ধান্ত প্রণেতাদের কাছে পৌঁছাতে বিভিন্ন বৈশ্বিক প্রতিষ্ঠান যেমন UNAIDs, Oxfam ও অ্যালায়েন্সভুক্ত ২০টি আন্তর্জাতিক সংস্থার সাথে কাজ করছেন। কোভিড-১৯-কে একটি বৈশ্বিক সর্বসাধারণের সামগ্রী হিসেবে ঘোষণা করার লক্ষ্যে জাতি সংঘ সাধারণ পরিষদে একটি সিদ্ধান্তের খসড়া প্রণয়নে অ্যালায়েন্স একযোগে উদ্যোগ নিয়েছে।

 

Please find the petition here: https://secure.avaaz.org/campaign/en/vaccine_common_good/?zLNlAfb

Related

YSBC Web Lecture Series - Lecture#37: he Story of a Social Business Entrepreneur from Japan.

YSBC Web Lecture Series - Lecture#37: he Story of a Social Business Entrepreneur from Japan.
Join us for the 37th session of our YSBC Web Lecture Series on "The Story of a Social Business Entrepreneur from Japan" with Speaker Yukoh Satake; Co-CEO, Grameen Euglena, Japan. The session will be  moderated by A K M Moinuddin Chowdhury; Managing Director, Gra...

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক প্রফেসর ইউনূসের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগসমূহের জবাব

  সম্প্রতি (জুন ২০২২) মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নোবেল লরিয়েট প্রফেসর মুহাম্মদ ইউনূসের বিরুদ্ধে কিছু গ...

Yunus Speaks at Parliamentary Breakfast in the German Parliament

Yunus Speaks at Parliamentary Breakfast in the German Parliament
Press Release Caption for Photo 1 : With Prof. Dr. Rita Suessmuth (born 1937), a long time friend and supporter of Yunus's programmes, came to meet Professor Yunus to hear him speak. She is the former two term President (Speaker) of German Parliament, November 1988 &...

Mahathir Mohammad Invites Professor Yunus for a Discussion

Mahathir Mohammad Invites Professor Yunus for a Discussion
Yunus Centre Press Release (March 30, 2022) Nobel Laureate Professor Muhammad Yunus and Former Prime Minister of Malaysia Dr. Mahathir Mohammad greeting each other on March 28, 2022 during Professor Yunus’ 3 day visit to Malaysia. Nobel Laureate Professor Muha...

ড. মাহাথির ও প্রফেসর ইউনূসের মধ্যে বৈঠক

ড. মাহাথির ও প্রফেসর ইউনূসের মধ্যে বৈঠক
ইউনূস সেন্টার প্রেস রিলিজ (৩০ মার্চ ২০২২)  মার্চ ২৮, ২০২২ কুয়ালালামপুরে ড. মাহাথির মোহাম্মদের কার্যা...

মালয়েশিয়ার আলবুখারী আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম সমাবর্তন অনুষ্ঠানে ডিগ্রি প্রদান করলেন প্রফেসর ইউনূস

মালয়েশিয়ার আলবুখারী আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম সমাবর্তন অনুষ্ঠানে ডিগ্রি প্রদান করলেন প্রফেসর ইউনূস
ইউনূস সেন্টার প্রেস রিলিজ (২৮ মার্চ ২০২২) ছবির ক্যাপশন: আলবুখারী আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্...

Yunus Gives out degrees in the first convocation ceremony of Albukhary International University (AIU) in Malaysia

Yunus Gives out degrees in the first convocation ceremony of Albukhary International University (AIU) in Malaysia
Yunus Centre Press Release ( 28 March 2022) Caption : Nobel Laureate Professor Muhammad Yunus with the faculty and graduating students of Albukhary International University (AIU) at the inaugural convocation 2022. Nobel Laureate Professor Muhammad Yunus gave out deg...

Yunus Scholarship | One Young World 2022

Yunus Scholarship | One Young World 2022
  Yunus Centre is currently accepting applications from candidates to participate in the One Young World 2022 Summit in Tokyo, Japan from 16-May, 2022.   The annual One Young World Summit brings together the most promising young talents from global and na...